সিলেট ৩১শে জানুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ, ১৭ই মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৭ই রজব, ১৪৪৪ হিজরি

ছাত্রদল নেতার মুক্তির দাবিতে সিলেটে অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘট

সিলেটের বার্তা ডেস্ক
প্রকাশিত জানুয়ারি ২৩, ২০২৩, ১২:০৪ পূর্বাহ্ণ
ছাত্রদল নেতার মুক্তির দাবিতে সিলেটে অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘট

নাশকতা মামলায় গ্রেপ্তার হওয়া সিলেট জেলা ছাত্রদলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও পরিবহন শ্রমিক নেতা আলী আকবর রাজনের মুক্তির দাবিতে সিলেটে অনির্দিষ্টকালের পরিবহন ধর্মঘট ডেকেছে সিলেট জেলা পরিবহন ঐক্য পরিষদ।

আজ সোমবার (২৩ জানুয়ারি) ভোর থেকে দাবি না মানা পর্যন্ত সিলেট জেলায় অনির্দিষ্টকালের এ ধর্মঘট পালিত হবে।

রাজন সিলেট জেলা ছাত্রদলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এবং বাস-মিনিবাস শ্রমিক ইউনিয়ন সিলেট জেলা ও বিভাগীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক।

বিষয়টি কালের কণ্ঠকে নিশ্চিত করেছেন সিলেট জেলা বাস, মিনিবাস শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি মইনুল ইসলাম। তিনি বলেন, ‘দেড় মাস দরে পরিবহন শ্রমিক নেতা আলী আকবর রাজন কারাবন্দি। তাকে জামিন দেওয়া হচ্ছে না।’ তিনি জানান, ‘ধর্মঘটে অ্যাম্বুলেন্স, বিয়ের যাত্রী, বিদেশযাত্রী, পরীক্ষার্থী, প্রাইভেট গাড়ি ধর্মঘটের আওতামুক্ত থাকবে।’

নাশকতার মামলায় গ্রেপ্তার ছাত্রদল নেতার জামিনের জন্য পরিবহন ধর্মঘটের যৌক্তিকতা প্রসঙ্গে জানতে চাইলে তিনি বলেন, জ্বালাও পুড়াও মামলা গ্রেপ্তার হলেও রিকাবীবাজারে আওয়ামী লীগের সম্মেলনের ফেস্টুন-ব্যানার ছিড়ার মামলায় তাকে চালান দিয়েছে পুলিশ। কিন্তু সেদিন রাজন সিলেটে ছিলেন না। আরো একটা মামলা আছে। একটায় জামিন হলে আরেকটি দিয়ে আটকে রাখার চেষ্টা করা হচ্ছে। এটা হিংসাত্মক। হোক দলীয় কিন্তু তিনি তো আমাদের একজন শ্রমিক নেতা। জামিন পাওয়ার অধিকার তো তার আছে। জামিন দিলে সে আদালতে হাজিরা দেবে। সাজা যেটা হবে সেটা তো মাথা পেতে নেবে। কিন্তু কয়েকবার মুভ করার পরও জামিন হচ্ছে না।’

প্রসঙ্গত, সিলেট জেলা বাস-মিনিবাস শ্রমিক ইউনিয়নের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আলী আকবর রাজন বিএনপির রাজনীতির সঙ্গে জড়িত। তিনি সিলেট জেলা ছাত্রদলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্বে রয়েছেন। গত ৭ ডিসেম্বর সিলেট নগরের সুরমা মার্কেট এলাকা থেকে পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করে। ২০১৮ সালের জ্বালাও-পোড়াওয়ের একটি মামলায় আলী আকবর রাজনের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা ছিল। ওই মামলায় তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

সংবাদটি শেয়ার করুন