আজ শনিবার, ২৪শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১১ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

সাংবাদিক টিপুকে প্রাণনাশের হুমকি, থানায় জিডি

সিলেটের বার্তা ডেস্ক
প্রকাশিত জুন ২৮, ২০২০, ০৮:৪৯ অপরাহ্ণ
সাংবাদিক টিপুকে প্রাণনাশের হুমকি, থানায় জিডি

সিলেটের বার্তা ডেস্ক:: দৈনিক সবুজ সিলেটের স্টাফ ফটো সাংবাদিক নিজামুদ্দিন টিপুকে প্রাণনাশের হুমকি প্রদান করা হয়েছে। এ ঘটনায় তিনি কতোয়ালি মডেল থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছেন।

গোয়াইনঘাটের একটি সরকারি সড়ক নিয়ে সংবাদ প্রচার করায় দৈনিক সবুজ সিলেট পত্রিকার স্টাফ ফটো সাংবাদিক নিজাম উদ্দিন টিপুকে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে হত্যার হুমকি দিয়েছে শিবির ক্যাডার গুলজার ও আনছার বাহিনী।

এ ঘটনায় শনিবার (২৭ জুন) রাতে নিজের ও পরিবারের নিরাপত্তা চেয়ে সিলেট কোতোয়ালি মডেল থানা একটি সাধারণ ডায়েরি (নম্বর-১৫১২) করেছেন নিজাম উদ্দিন টিপু।

সাধারণ ডায়েরিতে সাংবাদিক নিজাম উদ্দিন টিপু উল্লেখ করেন, তিনি দৈনিক সবুজ সিলেট পত্রিকার স্টাফ ফটো সাংবাদিক হিসেবে ৫ বছর থেকে কর্মরত আছেন এবং মদনমোহন কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ে মার্স্টার্সে অধ্যয়নরত ছাত্র। গোয়াইনঘাট উপজেলার ৬ নম্বর ফতেহপুর ইউনিয়নের ৩ নম্বর ওয়ার্ডে ফতেহপুর মৌজার লামা ফতেহপুর গ্রামে তাঁর বাড়ি। তারা বাড়িতে কেউ স্থায়ীভাবে থাকেন না। মাঝেমধ্যে তার বড় ভাই সিলেটের দিনকাল পত্রিকার বিশেষ প্রতিনিধি মো. ইসলাম আলী বাড়িতে যাওয়া-আসা করেন। স¤প্রতি একটি সন্ত্রাসী বাহিনী তাদের গ্রামের সরকারি সড়কের নাম জোরপূর্বক তাদের নিজ নামে নামকরণ করতে চায়। রাস্তার নামকরণ নিয়ে নিজাম উদ্দিন টিপু ও তাঁর বড় ভাই গণমাধ্যমে সংবাদ প্রচার করেন। সংবাদপ্রচার করার কারণে গুলজার ও আনছার বাহিনীর রোশানলে পড়েন তারা। গত ১৭ জুন তাদের গ্রামের বাড়ি ফতেহপুর ইউনিয়নের লামাফতেহপুর গ্রামে তার বড় ভাই মো. ইসলাম আলীর উপর হামলা করতে যায় গোয়াইনঘাট উপজেলার ফতেহপুর ইউনিয়নের নারায়ণপুর গ্রামের মৃত মাওলানা কলিম উল্লাহর পুত্র বিয়ানীবাজার কলেজ ছাত্র শিবিরের সাবেক সভাপতি মাহতাব উদ্দিন ও মৃত ইমদাদ উল্লাহর ছেলে এমসি কলেজ ছাত্র শিবিরের সাবেক ক্যাডার ছালেক আহমদের নির্দেশে আব্দুল্লাহ, আফতাব উদ্দিন, জোবের আহমদ, আনছার আহমদ ও গোলজার আহমদসহ অজ্ঞাতনামা কয়েকজন সন্ত্রসী দল।

হামলার ঘটানর সময় নিজাম উদ্দিন টিপু পূর্ব জিন্দাবাজার, সিলমার্ট কমপ্লেক্সে অবস্থিত দৈনিক সবুজ সিলেট অফিসে কর্মরত অবস্থায় ছিলাম। তখন নিজাম উদ্দিন টিপু তার ভাইকে হত্যা চেষ্টা করা হচ্ছে বলে ফেইসবুকে একটি স্ট্যাটাস দেন। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে গুলজার আহমদ তার ফেইসবুক আইডি থেকে তার পোষ্টের নিচে ‘পাই টু পাই। আগে গ্রামে আয়, তার পর সামনাসামনি কথা বলিস, দেখবে কত ধানে কত চাল’ বলে হত্যার হুমকি প্রদান করে। এবং সিলেট শহরের যেকোন জায়গায় গুলজার আহমদ ও আনছার আহমদ তাদের সন্ত্রাসী বাহিনী দিয়ে নিজাম উদ্দিন টিপুকে মেরে ফেলবে বলে বিভিন্ন মাধ্যমে হুমকি দিয়ে আসছে।

সাধারণ ডায়েরিতে তিনি আরো উল্লেখ করেন, গত বৃহস্পতিবার ২৫ জুন সিলেট প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে করে নিজাম উদ্দিন টিপু ও তার ভাই মো. ইসলাম আলীকে নিয়ে বিভিন্ন ধরনের মিথ্যা, বানোয়াট, অসত্য বক্তব্য প্রদান করে। যাহা বিভিন্ন অনলাইন পোর্টাল ও সিলেটের ডাক পত্রিকায় শুক্রবার ২৬ জুন শেষের পৃষ্টায় সিঙ্গেল কলামে সংবাদটি প্রকাশিত হয়। যাহা আমার দৃষ্টিগোচার হয়েছে। সংবাদের একটি অংশে আনছার আমাকে সাংবাদিক নামধারী এবং সীমান্তবর্তী এলাকায় বাড়ি হওয়ায় নিজাম উদ্দিন টিপু ও আমার ভাই মো. ইসলাম আলী চোরাচালান ও মাদক ব্যবসার সঙ্গে জড়িত বলে উল্লেখ করেছে। এই সংবাদের তাঁর পরিবার সামাজিক ও মানসিকভাবে মারাত্মক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বলে তিনি সাধারণ ডায়েরিতে উল্লেখ করেন।

এ ব্যাপারে কোতোয়ালি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সেলিম মিঞা বলেন, সাংবাদিক নিজাম উদ্দিন টিপুকে হত্যার বিষয়টি সম্পর্কে আমরা অবগত আছি। তদন্তপূর্বক হুমকিদাতাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সিলেটের বার্তা ডেস্ক


শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯